সুন্দরবন রক্ষায় সরকারকে গুরুত্বের আহ্বান বাপার

সুন্দরবন রক্ষায় সরকারকে গুরুত্ব দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা)। বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষে মঙ্গলবার (৪ জুন) সকাল ৯টায় বাগেরহাটের মোংলার কানাইনগরে পশুর নদের পাড়ে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) মোংলা শাখা ও পশুর রিভার ওয়াটারকিপারের আয়োজনে সুন্দরবন বাঁচাও, উপকূল বাঁচাও, বাংলাদেশ বাঁচাও শীর্ষক মানববন্ধনে এ আহ্বান জানান বক্তারা।

মানববন্ধনে বক্তারা আরো বলেন, সুন্দরবন না থাকলে ঘূর্ণিঝড় রেমালে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হতো। সুন্দরবন এবারও বুক পেতে উপকূলের মানুষদের ঘূর্ণিঝড় থেকে রক্ষা করেছে। ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষয়ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে সুন্দরবনের ওপর মানুষের অত্যাচার বন্ধ করতে হবে।

বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন বাপার কেন্দ্রীয় যুগ্ম সম্পাদক পশুর রিভার ওয়াটারকিপার মো. নূর আলম শেখের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন বাপা নেতা নাজমুল হক, গীতিকার মোল্লা আল মামুন, মারুফ বিল্লাহ, পশুর রিভার ওয়াটারকিপার ভলান্টিয়ার শেখ রাসেল, জাহিদ ব্যাপারী আলমগীর ব্যাপারী, শাহাদত শেখ, হেনা বেগম, সাহারুন বেগম প্রমুখ।

সমাবেশে বক্তারা আরো বলেন, রেমালে এ পর্যন্ত ১২৭টি হরিণ ও ৪টি বন্যশুকর মৃত উদ্ধারের খবর পাওয়া গেছে। বাস্তবে সুন্দরবনে শত শত বন্যপ্রাণী মারা গেছে। এখানকার ৩৫ লাখ মানুষের জীবন-জীবিকা সুন্দরবনের ওপর নির্ভরশীল।

সভাপতির বক্তব্যে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলনের (বাপা) কেন্দ্রীয় যুগ্ম সম্পাদক নূর আলম শেখ বলেন, সুন্দরবন অন্যান্য বনের চেয়ে বেশি কার্বন ধরে রেখে পরিবেশ সংরক্ষণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। রেমালে সুন্দরবনের মিষ্টি পানির আধার নোনা পানিতে তলিয়ে গেছে। কাজেই মানুষসহ বন্যপ্রাণীর সুপেয় পানির সংকট তীব্র হচ্ছে। ফসল উৎপাদনে কৃষক নানা সংকটে ভুগছে। এসব সংকট নিরসনে সরকারকে দুর্যোগকবলিত মানুষের পাশে আন্তরিকভাবে থাকার আহ্বান জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপি বা সিলেক্ট করা যাবে না।